IPL 2020: দিল্লি ক্যাপিটালস হেলায় হারিয়ে দিল বিরাট কোহলির আরসিবিকে!‌

খেলাধুলা

[ad_1]

IPL 2020: দিল্লি ক্যাপিটালস হেলায় হারিয়ে দিল বিরাট কোহলির আরসিবিকে!‌

দিল্লির বোলিং চার্ট দেখলেই বোঝা যাবে, বোলারদের দৌলতে এদিন অনেকটা এগিয়ে থেকে প্রথম ইনিংস শেষ করেছেন তাঁরা।

রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর:‌ ১৫২/‌৭ (‌২০)‌

দিল্লি ক্যাপিটালস:‌ ১৫৪/‌৪ (‌২০)‌

৬ উইকেটে জয়ী দিল্লি ক্যাপিটালস






আইপিএল–এ টিকে থাকার লড়াইয়ে এদিন মুখোমুখি হয়েছিল দিল্লি ক্যাপিটালস ও রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর। আবুধাবিতে এদিন ম্যাচে টস জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয় দিল্লি ক্যাপিটালস। ব্যাট হাতে ক্রিজে এসে ব্যাঙ্গালোরের দুই ওপেনিং ব্যাটসম্যান শুরুটা ভালই করেছিলেন। এদিকে দেবদত্ত পাডিকল অন্যদিকে ফিলিপে, একটা ভাল ইনিংস উপহার দিচ্ছিলেন। প্রথম দিক থেকে ধরে খেলতে চেষ্টা করলেও চার ওভারে ২৫ রানে পৌঁছে যায় বেঙ্গালুরু। তারপর ফিলিপে আউট হন রাবাডার বলে। আঁটোসাঁটো বোলিং আর দুর্দান্ত ফিল্ডিংয়ের জোরে আরসিবিকে বেশ বেঁধে বেঁধেই রেখেছিল দিল্লি। সেই বাঁধন ভাঙতে শুরু করেন বিরাট কোহলি। পাডিকলের সঙ্গে ছন্দে ব্যাটিং করতে থাকেন। কিন্তু এই প্রথমবার ক্রিকেট ইতিহাসে বিরাট কোহলিকে আউট করে দিল্লির দ্বিতীয় সাফল্য নিয়ে আসেন রবীচন্দ্রন অশ্বিন। ১৫ ওভারের মাথায় ১১২ রানে দ্বিতীয় উইকেট পড়ে যায় ব্যাঙ্গালোরের। তারপর নিয়মিত ব্যবধানে উইকেট পড়তে থাকে। ১৬ ওভারে ১১২ রানে পৌঁছে যাওয়া আরসিবি–এর থেকে যে কেউ আশা করবেন, শেষ ৫ ওভারে ছয় উইকেট হাতে নিয়ে অন্তত ৫০ রান করবেন তাঁরা। কিন্তু তা হয়নি। শেষ চার ওভারে ডেভিলিয়ার্সের কাঁধে ভর দিয়ে কোনওমতে ৪০ রান তোলে আরসিবি। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভার শেষে ১৫২ রানে ৭ উইকেটে শেষ হয় আরসিবির ইনিংস।



দিল্লির বোলিং চার্ট দেখলেই বোঝা যাবে, বোলারদের দৌলতে এদিন অনেকটা এগিয়ে থেকে প্রথম ইনিংস শেষ করেছেন তাঁরা। দিল্লির চার বোলার, অশ্বিন, রাবাডা, নোকিয়া আর অক্সর প্যাটেলের ইকোনমি ৯–এর উপর যায়নি। কৃপণ বোলিং করে চার ওভারে মাত্র ১৮ রান দিয়েছেন অশ্বিন। যদিও, শেষ পর্যন্ত তাঁকে চোটের জন্য মাঠের বাইরে চলে যেতে হয়। কিন্তু ততক্ষণে কাজের কাজ করে দিয়েছেন তিনি। বিরাট কোহলির ক্যাচ ফস্কালেও এদিন নিজে তিন উইকেট তুলে নেন নোকিয়া। সব মিলিয়ে বোলিংয়ের দিক থেকে দিল্লি ছিল আপ টু দ্যা মার্ক।

ব্যাটিংয়ের শুরুটা ভালই করে দিল্লি ক্যাপিটালস। তবে শুরুতে ফিরে যান পৃথ্বী শ। তারপর খেলা ধরেন শিখর ধাওয়ান অজিঙ্কে রাহানে। আসলে উইকেটে টিকে থাকলে এই রান সহজে আসবে ভেবে ধরে খেলতে থাকেন দু’‌জনে। ৬ ওভারে ১ উইকেট হারিয়ে ৫৩ রানে পৌঁছে যায় দিল্লি। ১১ ওভারের মাথায় ৫০ রান পূর্ণ করেন শিখর ধাওয়ান। দলের ১০৭ রানের মাথায় আউট হন শিখর ধাওয়ান। ততক্ষণে ম্যাচ পকেটে পুরে নিয়েছে দিল্লি। অর্ধশতরান পুরণ করেন অজিঙ্কে রাহানে। ৬ উইকেটে সহজ জয় ছিনিয়ে নেয় দিল্লি ক্যাপিটালস।



Published by:
Uddalak Bhattacharya


First published:
November 2, 2020, 10:52 PM IST

পুরো খবর পড়ুন

[ad_2]

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।