‘সরকারের জনগণের প্রতি কোনো দায়বদ্ধতা নেই’

বাংলাদেশ সকল জেলা

সরকার বিনা ভোটে নির্বাচিত বলেই জনগণের প্রতি কোনো দায়বদ্ধতা নেই বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক ও সাবেক ডাকসু ভিপি নুরুল হক নূর।

মঙ্গলবার পলিটেকনিক শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে পুলিশি হামলা ও গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে রাজধানীর প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক প্রতিবাদ সভায় এ কথা বলেন তিনি।

নুরুল হক নূর বলেন, তাদের কোনো দাবি অযৌক্তিক নয়। প্রত্যেকটি ছাত্র সংগঠন জানিয়েছে যে করোনাকালে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ফি নেয়া যাবে না। প্রয়োজনে আমরা বলবো আপনারা অর্ধেক করে ফি নেন। কিন্তু আপনাদের মানবিক পরিচয় দিতে হবে।

তিনি বলেন, আজ বাংলাদেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বের প্রতীক সেনাবাহিনীকে নিয়ে ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে। আমি মনে করি শুধু সেনাবাহিনী নয়, বাংলাদেশকে নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ছাত্র-যুবক বন্ধুদের বলব, আপনারা চোখ-কান খোলা রাখুন। আল জাজিরার প্রতিবেদনটি পলিটিক্যাললি মোটিভেটেড। তবে এর অবশ্যই অনেক সত্যতা রয়েছে। কিন্তু আপনাদের বুঝতে হবে এটি একটি রাষ্ট্রের জন্য স্পর্শকাতর একটি প্রতিবেদন

৭ ফেব্রুয়ারি শাহবাগে পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট এর শিক্ষার্থীরা ৪ দফা দাবি আদায়ের আন্দোলনে সমাবেশ করলে পুলিশ সেখানে লাঠিচার্জ করে এবং ৫ শিক্ষার্থীকে গ্রেপ্তার করে৷ তারই প্রতিবাদে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করে ছাত্র অধিকার পরিষদ৷ সভায় পলিটেকনিকের শিক্ষার্থীরা সংহতি জানিয়ে অংশ নেয়।

করোনা পরিস্থিতির কারনে ক্লাস পরীক্ষা বন্ধ থাকায় এক বছর সেশন জট নিরসনের জন্য দ্রুত শর্ট সিলেবাসে পরীক্ষা নেয়া, বেসরকারি পলিটেকনিকের সেমিস্টার ফি কমানো সহ চার দফা দাবিতে গত কয়েকমাস ধরে আন্দোলন করে আসছেন দেশের পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের শিক্ষার্থীরা।