ভূমধ্যসাগর থেকে ২০০ অভিবাসন প্রত্যাশী উদ্ধার

আন্তর্জাতিক

জার্মানির একটি দাতব্য সংস্থা ভূমধ্যসাগর থেকে অন্তত ২শ’ অভিবাসন প্রত্যাশীকে উদ্ধার করেছে।

শনিবার ওশেন ভাইকিং কর্তৃপক্ষ জানায়, একই দিনে চারটি ভিন্ন অভিযানে তাদের উদ্ধার করা হয়। এর মধ্যে আহত অবস্থায় রয়েছেন অনেকে। একটি নৌকায় আগুন লাগার পর রাসায়নিকের সংস্পর্শে পুড়ে মারাত্মক আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন।

এসব অভিবাসন প্রত্যাশীর মধ্যে ৩৩ শিশু সহ দুইজন গর্ভবতী নারীও ছিলেন। বেশিরভাগই দক্ষিণ সুদান, তিউনিসিয়া, মরক্কো, আইভরি কোস্ট, লিবিয়া ও মালির নাগরিক। একটি নৌকা থেকে লিবিয়ার কোস্ট গার্ড অভিবাসীদের উদ্ধার করলেও, দাতব্য সংস্থার জাহাজ দেখার পর অনেকেই আবার সাগরে ঝাঁপ দেয়। পরে তাদের উদ্ধার করে সি ওয়াচ থ্রি জাহাজটি।  লিবিয়া উপকুলে একটি কাঠের নৌকা থেকে আরও ৬০ জনের বেশি অভিবাসন প্রত্যাশীকে উদ্ধার করা হয়। নৌকাটিতে আগুন লাগার পর অনেকে আহত হয়।

সাম্প্রতিক সময়ে লিবিয়া ও তিউনিসিয়া থেকে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইতালি যাওয়া অভিবাসীর সংখ্যা আশঙ্কাজনক ভাবে বেড়ে গেছে।  চলতি বছর আফ্রিকা ও মদ্যপ্রাচ্যের অন্তত ১১শ অভিবাসী ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা।