বিমানবন্দর সড়ক: ২০ মিনিটের পথে লাগে কয়েক ঘণ্টা

বাংলাদেশ

রাজধানীর শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যাওয়ার রাস্তায় যানজট অসহনীয় হয়ে উঠেছে। ২০ মিনিটের পথ যেতে দুই থেকে তিন ঘন্টা লাগে। প্রবাসীরা বলছেন, এমন অবস্থায় বিদেশিদের কাছে লজ্জা পেতে হয় তাদের।

ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছতে পাড় করতে হয় দীর্ঘ যানজট। কখনো কখনো আধাঘন্টার পথ যেতে সময় লাগে কয়েক ঘন্টা। যানজটের কারণে প্রতিদিন গড়ে কয়েকশো মানুষের ফ্লাইট মিস হয়, যাদের বেশিরভাগই প্রবাসী কর্মী।

দেশের এমন গুরুত্বপূর্ণ বিমানবন্দরের প্রধান প্রবেশ পথে রাস্তা ভাঙ্গা। নির্মাণ কাজের নামে দীর্ঘদিন ধরেই বন্ধ করে রাখা হয়েছে আরও একটি সড়ক। বিভিন্ন জায়গায় পড়ে আছে বালি, পাথর আর নির্মাণ সামগ্রী। সেই সাথে ধুলোর রাজ্য।

প্রবাসীদের যারা ছুটিতে দেশে ফিরছেন তাদেরও পড়তে হচ্ছে বিড়ম্বনায়। মালামাল নিয়ে দীর্ঘপথ হেঁটে পরিবহণে উঠতে হচ্ছে তাদের। বিমানবন্দরে আসা যাওয়ার প্রধান সড়কগুলোর অবস্থাও নাজুক।

নির্মাণ কাজের ফলে বেশিরভাগ জায়গায় রাস্তা কাটা। ধুলো এমন পর্যায়ে গেছে যে দু’বেলা স্প্রে করেও সমস্যার সমাধান হচ্ছে না। আবার একটু বৃষ্টি হলেই তলিয়ে যায় বিমানবন্দর সড়ক। প্রবাসীরা বলছেন, বিদেশীরা এই বিমানবন্দরে নেমে রাস্তার অবস্থা দেখে দেশ সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা নিয়ে যায়।

এক পথচারী বলেন, ‘কোনো বিদেশী যদি প্রথমবার বাংলাদেশে আসে, আমাদের এই পরিবেশ দেখে দ্বিতীয়বার আসার জন্য কোনো ধরণের আগ্রহ জন্মাবে না। জ্যামযট নিরসনের জন্যে বিমানবন্দরের সামনে আরও বেশি পরিমাণে আইন শৃংখলা মতায়ন করতে হবে, যাতে একজন লোক বিমান ভ্রমণের আগে কোনো প্রকার বিড়ম্বনার সম্মুখিন হতে না হয়’।

প্রয়াত মেয়র আনিসুল হক এই সড়কগুলোর সৌন্দর্য বর্ধণে বেশকিছু উদ্যোগ নিলেও অব্যবস্থাপনায় তা এখন আর কাজে আসছে না। এ অবস্থায় বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সমন্বিত উদ্যেগ ছাড়া সমস্যার সমাধান সম্ভব নয়।

অন্যান্য দেশের মতো বিমানবন্দর সড়কটিকে ভিআইপি সড়ক ঘোষণা করা হলেও সে মর্যাদা রক্ষা করার দৃশ্যমান কোনো উদ্যোগ নেই।