শিশু বলাৎকারের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

আইন ও কানুন

সাভারে শিশু শিক্ষার্থীকে বলাৎকারের অভিযোগে আলামিন হাসান সাইম (২৭) নামের এক মাদ্রাসা শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী পরিবার। ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে অভিযুক্ত মাদ্রাসা শিক্ষক।

রবিবার (৩রা এপ্রিল) রাতে এ ঘটনায় সাভার মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়। এর আগে গত ১ এপ্রিল রাত আড়াইটার দিকে সাভারের রাজাশন বিরুলিয়া রোডের নূরানী তালিমুল কোরআন মাদ্রাসার আবাসিক ভবনের দ্বিতীয় তলায় এ ঘটনা ঘটে।

অভিযুক্ত আলামিন হাসান সাইম ময়মনসিংহ জেলার ধুবাউড়া থানার সাতানিপাড়া গ্রামের জসিম উদ্দিনের ছেলে। তিনি সাভারের রাজাশন বিরুলিয়া রোডের নূরানী তালিমুল কোরআন মাদ্রাসায় শিক্ষকতা করতেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ওই মাদ্রাসায় ভুক্তভোগী শিশু আবাসিকে থেকে আরবি বিভাগের নাজেরা শ্রেণীতে লেখাপড়া করে। এদিকে, মাদ্রাসায় শিক্ষকতার পাশাপাশি ভুক্তভোগী শিশুকে দেখাশুনা করে আসছিলেন আল-আমিন হাসান। পরে গত ১ এপ্রিল রাত আড়াইটার দিকে ওই মাদ্রাসার আবাসিক ভবনের দ্বিতীয় তলায় ওই শিশুকে ঘুম থেকে ডেকে তুলে বলাৎকার করেন অভিযুক্ত শিক্ষক। এরপর বাসায় ফিরে কান্নাকাটি করে পরিবারের কাছে বিষয়টি খুলে বলে ভুক্তভোগী শিশু। পরে রাতে সাভার মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগীর পরিবার।

সাভার মডেল থানার উপ-পরিদর্শক সৈকত বলেন, এ ব্যাপারে মামলা দায়ের হয়েছে। একই সাথে অভিযুক্তকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত আছে।